সম্পর্ককে অটুট রাখবেন যেভাবে!

একটা ভালো সম্পর্ক কারো সাথে করতে হলে প্রয়োজন পরিচর্যা। ভালো একটা সম্পর্ক গড়া আর সেটাকে একই রকম ভাবে টিকিয়ে রাখা সহজ নয়। যে কোন ছোট ভুলের কারণেই ভেঙ্গে যেতে পারে আপনার প্রিয় মানুষটির সাথে গড়ে ওঠা দীর্ঘদিনের সম্পর্ক। তাই সম্পর্ক গড়ে তোলার পর যদি সঙ্গীর ঠিকমত খেয়াল রাখতে না পারেন, তাহলে সেই সম্পর্ক দুর্বল হয়ে যায়। তাই সম্পর্ককে অটুট রাখতে কিছু ছোট ছোট বিষয় জানা জরুরি।

এমনি কয়েকটি বিষয় জেনে রাখুন যার মাধ্যমে আপনার প্রিয় মানুষটির সাথে আপনার সম্পর্ক আরো গভীর হবে-

গুরুত্বপূর্ণ দিন মনে রাখুন

আপনার সঙ্গীর জন্মদিন, বিবাহসহ বিশেষ স্মরণীয় দিনগুলো মনে রাখুন। এ দিনে তাকে সম্ভাষণ জানান। উপহার দিতে বা পাঠাতে পারেন। অনেকে উপহার দেওয়ার ক্ষেত্রে দামের বিষয়টি মুখ্য মনে করেন। আসলে টাকা বিবেচিত না করে আন্তরিকতাটাই মুখ্য করুন। এতে আপনার সম্পর্কে অটুট বজায় থাকবে।

আনন্দগুলো ভাগাভাগি করুন

আপনার আনন্দের বিষয়গুলো বন্ধুর সঙ্গে ভাগাভাগি করুন। তার চিন্তা-ভাবনাও শুনুন। বন্ধুর উল্লেখ্যযোগ্য কোন কথায় বাহবা দিন ও মজা করুন। কথা শেয়ার করলে আপনি যেমন হালকাবোধ করবেন তেমনি বিশ্বাসও স্থাপন হবে।

একঘেয়েমি ছাড়ুন

সম্পর্ককে একঘেয়েমি হতে দেবেন না। হতে পারে আপনার কাছে এগুলো খুবই নগণ্য বিষয়। কিন্তু চেষ্টা করে দেখতে পারেন ফল ভালই হবে।

সঙ্গীর জন্য রান্না করুন

সব সময় বাইরের খাবার না খেয়ে সময় পেলে নিজেই সুস্বাদু রান্না করে সঙ্গীকে খাওয়ান। রেস্টুরেন্টের মতো সুস্বাদু হয়তো হবে না, কিন্তু আপনি বানিয়েছেন এটা জেনেই সঙ্গী খুব খুশি হবেন। খুবই উপভোগ করে খাবেন।

পোশাক

আপনি তো সব সময়ই নিজের পছন্দের পোশাক পরে থাকেন। নিজের পছন্দমতোই নিজেকে সাজান। একবার না হয় সঙ্গীর পছন্দে নিজেকে সাজিয়ে তুলেন। এতে সঙ্গী যেমন খুশি হবে তেমনি সম্পর্কও জোরাল থাকবে।

সঙ্গীর প্রশংসা করুন

সম্পর্কের সবচেয়ে বড় ওষুধ হচ্ছে প্রশংসা। ছিঁড়ে যাওয়া সম্পর্কের দড়িও আবার শক্ত করে বেঁধে ফেলার ক্ষমতা রয়েছে এর। তাই যখনই সম্ভব সঙ্গীর কাজের প্রশংসা করুন। তবে অবশ্যই তা যেন জোরজবরদস্তি না হয়। এতে বিপরীত হতে পারে।

সমস্যার সময় সাহায্য করুন

সঙ্গীর যে কোন সমস্যায় সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিন। সঙ্গী কোন ঝামেলায় পড়লে যেন ভেঙে না পড়ে, সেই দিকের নজর আপনাকেই রাখতে হবে। সম্পর্ককে অটুট রাখতে এটা অবশ্যই জরুরী।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *