গুজবে কষ্ট পেয়েছেন কাজী হায়াৎ

জনপ্রিয় নির্মাতা কাজী হায়াতের মৃত্যুর গুজব হঠাৎ করেই সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়ে গতকাল বুধবার। এ বিষয়ে মর্মাহত হয়েছেন কাজী হায়াৎ ও তাঁর পরিবারের সদস্যরা।

নিউইয়র্ক থেকে এক ভিডিও বার্তায় কাজী হায়াৎ বলেন, ‘আমি হসপিটালে আছি। অসুস্থ, তবে বেঁচে আছি। যারা মিথ্যা কথাটা ছড়িয়েছে, তাদের আমি নিন্দা করি। কেন এই মিথ্যা কথা? আমি খুব কষ্ট পেলাম। সবাই আমার জন্য দোয়া করবেন, আমি যেন বাংলাদেশে ফিরে আসি।’

অন্যদিকে কাজী মারুফ লিখেছেন, ‘প্লিজ, কোনো অপপ্রচার চালাবেন না। আমার বাবা ভালো আছেন।’

নির্মাতা কাজী হায়াতের ঘাড়ের একটি রক্তনালি ব্লক হয়ে গেছে। উন্নত চিকিৎসার জন্য তিনি নিউইয়র্কে গেছেন গত ২২ ডিসেম্বর। গত বছরের মার্চে নিউইয়র্কের মাউন্ট সিনাই হাসপাতালে একবার চিকিৎসা নেন কাজী হায়াৎ। সম্প্রতি আবারও অসুস্থ বোধ করছিলেন তিনি। ২০০৪ সালে হৃৎপিণ্ডে দুটি রিং বসানো হয়েছিল প্রখ্যাত এই চলচ্চিত্র নির্মাতার। ২০০৫ সালে ওপেন হার্ট সার্জারি করা হয় তাঁর। এরপর গত বছরের জানুয়ারিতে আবারও হৃৎপিণ্ডে সমস্যা দেখা দিলে বরেণ্য এই নির্মাতা প্রধানমন্ত্রীর কাছে সাহায্যের জন্য আবেদন করেন। তারপর গত বছর প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে ১০ লাখ টাকা অনুদান পান তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *