এআই ভিত্তিক প্রকল্প ব্যবস্থাপনা সফটওয়্যার চালু করলো পিএমঅ্যাস্পায়ার

দেশে ই-লার্নিং ট্রেনিং সিমুলেটর প্ল্যাটফর্ম নির্মাতা প্রতিষ্ঠান হিসেবে পরিচিত পিএমঅ্যাস্পায়ার। দেশিও প্রতিষ্ঠানটি এবার সিঙ্গাপুরে বিশ্বের প্রথম এআই ভিত্তিক প্রকল্প ব্যবস্থাপনা সফটওয়্যার এবং পিএমও ড্যাশবোর্ড চালু করেছে।

পিএমঅ্যাস্পায়ার (PMAspire) তাদের সিঙ্গাপুর অফিসে মঙ্গলবার অনুষ্ঠানিক ভাবে সফটওয়্যারটির উদ্বোধন করেন। এই সময় উপস্থিত ছিলেন, পিএমঅ্যাস্পায়ার প্রতিষ্ঠাতা ও সিইও আব্দুল্লাহ আল মামুন পিএমপি, স্যাজ সিঙ্গাপুরের পরিচালক স্টিফেন গনজালেজ এবং এজিজ পার্টনার্স পিটিই লিমিটেডের ডেনিস পোহ উই সং।

সিমুলেশন প্ল্যাটফর্ম, রেগটেক এন্টারপ্রাইজ এলএমএস এবং এআই ভিত্তিক প্রকল্প ম্যানেজমেন্ট সফটওয়্যার এর মাধ্যমে পিএমঅ্যাস্পায়ার ১০০ টি দেশে প্রকল্প ব্যবস্থাপনার সার্ভিস প্রদান করা হচ্ছে। সফটওয়্যারটি সাতটি আন্তর্জাতিক ভাষায় পাওয়া যাচ্ছে ইংরেজী, আরবি, পর্তুগিজ, ফরাসি, স্পেনীয়, জার্মান, আরবি এবং চীনা।

পিএমও সফ্টওয়্যার, ক্লাউড প্রজেক্ট ম্যানেজমেন্ট টুল যা প্রকল্প ব্যবস্থাপনা সহায়তা করে, প্রকল্প পরিচালকরা স্বচ্ছতা এবং স্বচ্ছ দৃশ্যমানতার সাথে প্রকল্প পরিচালনা করে। পিএমও ড্যাশবোর্ডের সাহায্যে, ব্যবহারকারী স্বচ্ছতার সাথে প্রকল্প সারাংশ দেখতে পারেন, বেসলাইন খরচ এবং সময়সূচী পরিচালনা করতে পারেন যথাযথ নিরীক্ষা এবং পুনর্বিবেচনার সাথে। ইভিএম ব্যবস্থাপনা ব্যবহার করে প্রকল্পের সাফল্য বা ব্যর্থতার পূর্বাভাস পাওয়া যায়।

উপরন্তু, মানব সম্পদ ক্যালেন্ডার পরিচালনা করা, লোড ম্যানেজমেন্টের সঙ্গে মানব সম্পদের সক্ষমতার পরিমাপ, ব্যবহারকারী বান্ধব কানবান বোর্ড এবং আরও অনেক কিছুর মাধ্যমে প্রকল্প বিতরণ এবং মাইলফলক সন্ধান করা যায়।

এটি বিশ্বের প্রথম কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা (এআই) সফটওয়্যার যা বিশ্বের প্রজেক্ট লিডারশীপ টীমের জন্য বিশেষভাবে প্রকল্প ব্যবস্থাপনা এবং প্রজেক্ট ম্যানেজারের জন্য তৈরি করা হয়েছে ।

আবদুল্লাহ আল মামুন বলেন, ‌‘প্রকল্প ব্যবস্থাপনায় এখনো এআই প্রযুক্তি ব্যবহার হয়নি। আমরা গত ৫ বছর ধরে গবেষণা চালিয়ে যাচ্ছি এই সেক্টরকে এগিয়ে নিতে। অবশেষে, আমাদের স্বপ্ন সফল হল। আমরা সফলভাবে নির্মিত এবং এআই ভিত্তিক প্রকল্প পরিচালনার সফটওয়্যার চালু করেছি যা পিএমও ড্যাশবোর্ড, দলের জন্য ঝুঁকিপূর্ণ নিবন্ধন, মাইলস্টোন ট্র্যাকার, পরিবর্তন ব্যবস্থাপনা, ইস্যু ব্যবস্থাপনা, সম্পদ ব্যবস্থাপনা ইত্যাদির কাজে আসবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *